হোয়াটসঅ্যাপকে জনপ্রিয় করতে ভিডিও চ্যাটিং সুবিধা - GBnews24
Bangla Blog
Add Post
Games
8 1 8 Best strategy game

হোয়াটসঅ্যাপকে জনপ্রিয় করতে ভিডিও চ্যাটিং সুবিধা

অডিও কলিং অ্যাপ হোয়াটসঅ্যাপে এবার সবার জন্য উন্মুক্ত করা হয়েছে ভিডিও কলিং সুবিধা। প্রতিষ্ঠানটির পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, বর্তমানে প্রতি মাসে ১০০ কোটিরও বেশি ব্যবহারকারী অ্যাপটি ব্যবহার করে। এ খবর জানিয়েছে প্রযুক্তি বিষয়ক ওয়েবসাইট দ্য ভার্জ।  

ফেসটাইম, স্কাইপ, ভাইবার, ফেসবুক মেসেঞ্জার ও গুগল ডুয়োর মতো ভিডিও কলিংয়ের অন্যান্য অ্যাপের মতো করেই সাজানো হয়েছে হোয়াটসঅ্যাপের ভিডিও কলিং অপশনটি। এখনকার দিনে প্রায় সব অডিও কলিং অ্যাপগুলোতেই ভিডিও কলিংয়ের সুবিধা যোগ করা হয়েছে। এদিক দিয়ে পিছিয়ে ছিল হোয়াটসঅ্যাপ।

হোয়াটস অ্যাপের চ্যাটবক্স খুললে কলিংয়ের একটি আইকন দেখা যাবে। সবুজ সেই আইকনে চাপ দিলেই ভয়েস কল এবং ভিডিও কলের দুটি অপশন আসবে, সেখান থেকে ক্রেতারা তাদের পছন্দমত অপশন বেছে নিতে পারবেন।

২০০৯ সালে যাত্রা শুরু করেছিল টেক্সট মেসেজিং অ্যাপ হোয়াটসঅ্যাপ। দুই বছর পর যোগ করা হয় গ্রুপ চ্যাটিংয়ের সুবিধা। ২০১৩ সালে যোগ করা হয় অডিও কলিংয়ের সুবিধা, পরবর্তীতে গ্রুপ অডিও কলিংয়ের সুবিধাও যোগ করা হয়।

২০১৪ সালে ২২০০ কোটি ডলারের বিনিময়ে ফেসবুক কিনে নেয় হোয়াটসঅ্যাপ। এর পরই অ্যাপটিকে জনপ্রিয় করে তুলতে বিভিন্ন পরীক্ষা-নিরীক্ষা শুরু করে ফেসবুক। এ বছর ডেস্কটপের জন্য ইন্ড-টু-ইন্ড এনক্রিপশন সুবিধাসম্বলিত অ্যাপ নিয়ে আসে হোয়াটসঅ্যাপ।

হোয়াটসঅ্যাপের লিড মোবাইল ইঞ্জিনিয়ার মানপ্রিত সিং বলেন, ‘ভিডিও কলিং অ্যাপ হিসেবে হোয়াটসঅ্যাপকে জনপ্রিয় করে তুলতে আমরা আমাদের সেরাটাই দেওয়ার চেষ্টা করব।’ 

তবে এখনই হয়তো বিশ্বের সব প্রান্তের মানুষ ভিডিও কলিংয়ের সুবিধাটি নাও পেতে পারে। ধীরে ধীরে সব দেশের ব্যবহারকারীরা ভিডিও কলিংয়ের সুবিধাটি পাবে।

 

 

Related News

See more
হোয়াটসঅ্যাপকে জনপ্রিয় করতে ভিডিও চ্যাটিং সুবিধা

হোয়াটসঅ্যাপকে জনপ্রিয় করতে ভিডিও চ্যাটিং সুবিধা...

অডিও কলিং অ্যাপ হোয়াটসঅ্যাপে এবার সবার জন্য উন্মুক্ত করা হয়েছে ভিডিও কলিং সুবিধা। প্রতিষ্ঠানটির পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, বর্তমানে প্রতি মাসে ১০০ কোটিরও বেশি ব্যবহারকারী অ্যাপটি ব্যবহার করে। এ খবর জানিয়েছে প্রযুক্তি বিষয়ক ওয়েবসাইট দ্য ভার্জ।   ফেসটাইম, স্কাইপ, ভাইবার, ফেসবুক মেসেঞ্জার ও গুগল ডুয়োর মতো ভিডিও কলিংয়ের অন্যান্য অ্যাপের মতো করেই সাজানো হয়েছে হোয়াটসঅ্যাপের ভিডিও কলিং অপশনটি। এখনকার দিনে প্রায় সব অডিও কলিং অ্যাপগুলোতেই ভিডিও কলিংয়ের সুবিধা যোগ করা হয়েছে। এদিক দিয়ে পিছিয়ে ছিল হোয়াটসঅ্যাপ। হোয়াটস অ্যাপের চ্যাটবক্স খুললে কলিংয়ের একটি আইকন দেখা যাবে। সবুজ সেই আইকনে চাপ দিলেই ভয়েস কল এবং ভিডিও কলের দুটি অপশন আসবে, সেখান থেকে ক্রেতারা তাদের পছন্দমত অপশন বেছে নিতে পারবেন। ২০০৯ সালে যাত্রা শুরু করেছিল টেক্সট মেসেজিং অ্যাপ হোয়াটসঅ্যাপ। দুই বছর পর যোগ করা হয় গ্রুপ চ্যাটিংয়ের সুবিধা। ২০১৩ সালে যোগ করা হয় অডিও কলিংয়ের সুবিধা, পরবর্তীতে গ্রুপ অডিও কলিংয়ের সুবিধাও যোগ করা হয়। ২০১৪ সালে ২২০০ কোটি ডলারের বিনিময়ে ফেসবুক কিনে নেয় হোয়াটসঅ্যাপ। এর পরই অ্যাপটিকে জনপ্রিয় করে তুলতে বিভিন্ন পরীক্ষা-নিরীক্ষা শুরু করে ফেসবুক। এ বছর ডেস্কটপের জন্য ইন্ড-টু-ইন্ড এনক্রিপশন সুবিধাসম্বলিত অ্যাপ নিয়ে আসে হোয়াটসঅ্যাপ। হোয়াটসঅ্যাপের লিড মোবাইল ইঞ্জিনিয়ার মানপ্রিত সিং বলেন, ‘ভিডিও কলিং অ্যাপ হিসেবে হোয়াটসঅ্যাপকে জনপ্রিয় করে তুলতে আমরা আমাদের সেরাটাই দেওয়ার চেষ্টা করব।’  তবে এখনই হয়তো বিশ্বের সব প্রান্তের মানুষ ভিডিও কলিংয়ের সুবিধাটি নাও পেতে পারে। ধীরে ধীরে সব দেশের ব্যবহারকারীরা ভিডিও কলিংয়ের সুবিধাটি পাবে।     ...

Add 600 * 300
© Copyright 2017 By GBnews24.com LTD Company Number: 09415178 | Design & Developed By (GBnews24 Group ) ☛ Email: gbnews24@gmail.com

United States   USA United States